সোমবার, ১৭ জুন ২০২৪, ৩ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

৮০ বছর পর মিললো দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের মার্কিন সাবমেরিনের ধ্বংসাবশেষ

দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের সময় সবচেয়ে বেশি জাপানি যুদ্ধজাহাজ ডুবিয়ে দেয়া মার্কিন নৌবাহিনীর সাবমেরিনগুলোর মধ্যে একটির ধ্বংসাবশেষ দক্ষিণ চীন সাগরে পাওয়া গেছে। শত্রু বাহিনীর আক্রমণে ডুবে যাওয়ার প্রায় ৮০ বছর পর পাওয়া গেলো এই সাবমেরিন। শুক্রবার (২৪ মে) এক প্রতিবেদনে ব্রিটিশ সংবাদ মাধ্যম বিবিসি এ তথ্য জানায়।

প্রতিবেদনে বলা হয়, ইউএসএস হার্ডার সাবমেরিনটি প্রায় ৩ হাজার ফুট পানির নিচে পাওয়া গেছে। ১৯৪৪ সালের ২৯শে আগস্ট প্রায় ৭৯ জপন ক্রু সদস্যের নিয়ে ডুবে যায় এটি।

ইউএস নেভির হিস্টোরি অ্যান্ড হেরিটেজ কমান্ড (এনএইচএইচসি)-এর তথ্য অনুসারে, যুদ্ধের সময় এই সাবমেরিনটি জাপানের তিনটি ডেস্ট্রয়ারকে ডুবিয়েছে এবং চার দিনের মধ্যে আরও দুটিকে ব্যাপকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত করেছিল। এটি জাপানিদের যুদ্ধ পরিকল্পনা পরিবর্তন করতে এবং তাদের বাহিনীকে বিলম্বিত করতে বাধ্য করেছিল। সেই সাথে জাপানিদের পরাজয়ে ক্ষেত্রে বিশেষভাবে অবদান রাখে।

Tag :

৮০ বছর পর মিললো দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের মার্কিন সাবমেরিনের ধ্বংসাবশেষ

Update Time : ০৪:০৭:১৯ অপরাহ্ন, শুক্রবার, ২৪ মে ২০২৪

দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের সময় সবচেয়ে বেশি জাপানি যুদ্ধজাহাজ ডুবিয়ে দেয়া মার্কিন নৌবাহিনীর সাবমেরিনগুলোর মধ্যে একটির ধ্বংসাবশেষ দক্ষিণ চীন সাগরে পাওয়া গেছে। শত্রু বাহিনীর আক্রমণে ডুবে যাওয়ার প্রায় ৮০ বছর পর পাওয়া গেলো এই সাবমেরিন। শুক্রবার (২৪ মে) এক প্রতিবেদনে ব্রিটিশ সংবাদ মাধ্যম বিবিসি এ তথ্য জানায়।

প্রতিবেদনে বলা হয়, ইউএসএস হার্ডার সাবমেরিনটি প্রায় ৩ হাজার ফুট পানির নিচে পাওয়া গেছে। ১৯৪৪ সালের ২৯শে আগস্ট প্রায় ৭৯ জপন ক্রু সদস্যের নিয়ে ডুবে যায় এটি।

ইউএস নেভির হিস্টোরি অ্যান্ড হেরিটেজ কমান্ড (এনএইচএইচসি)-এর তথ্য অনুসারে, যুদ্ধের সময় এই সাবমেরিনটি জাপানের তিনটি ডেস্ট্রয়ারকে ডুবিয়েছে এবং চার দিনের মধ্যে আরও দুটিকে ব্যাপকভাবে ক্ষতিগ্রস্ত করেছিল। এটি জাপানিদের যুদ্ধ পরিকল্পনা পরিবর্তন করতে এবং তাদের বাহিনীকে বিলম্বিত করতে বাধ্য করেছিল। সেই সাথে জাপানিদের পরাজয়ে ক্ষেত্রে বিশেষভাবে অবদান রাখে।