রবিবার, ২১ জুলাই ২০২৪, ৬ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ঝিনাইদহ-১ আসনের উপ-নির্বাচন স্থগিত

 

ঝিনাইদহ–১ আসনের উপনির্বাচনের তফসিল ২১ দিনের জন্য স্থগিত করেছেন হাইকোর্ট। উপনির্বাচনের তফসিল স্থগিত চেয়ে করা এক আবেদনের শুনানি নিয়ে বিচারপতি মো. জাকির হোসেনের একক হাইকোর্ট বেঞ্চ সোমবার (৬ মে) এ আদেশ দেন।

এর আগে দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে গত ৭ জানুয়ারি ভোট হয়। নির্বাচিতদের ফলাফলের গেজেট গত ৯ জানুয়ারি প্রকাশ করা হয়। ঝিনাইদহ-১ আসনে সংসদ সদস্য হিসেবে নৌকা প্রতীকের প্রার্থী আবদুল হাই নির্বাচিত হন। তবে ঝিনাইদহ–১ আসনে ভোটে অনিয়মের অভিযোগ তুলে পরাজিত স্বতন্ত্র প্রার্থী নজরুল ইসলাম হাইকোর্টে নির্বাচনী আবেদন (ইলেকশন পিটিশন) করেন। শুনানি নিয়ে গত ১ ফেব্রুয়ারি হাইকোর্ট রুল দিয়ে ঝিনাইদহ-১ আসনে মো. আব্দুল হাইকে বিজয়ী ঘোষণা করে প্রকাশিত নির্বাচন কমিশনের (ইসি) গেজেট দুই মাসের জন্য স্থগিত করেন।

এই আদেশ স্থগিত চেয়ে মো. আব্দুল হাই আপিল বিভাগে আবেদন করেন, যার ওপর গত ৫ ফেব্রুয়ারি চেম্বার আদালতে শুনানি হয়। সেদিন চেম্বার আদালত হাইকোর্টের আদেশ স্থগিত করে আবেদনটি আপিল বিভাগের নিয়মিত বেঞ্চে ১৩ মে শুনানির জন্য পাঠান। আব্দুল হাই সংসদ সদস্য হিসেবে দায়িত্ব নেন। চিকিৎসাধীন অবস্থায় গত ১৬ মার্চ তিনি মারা যান। আসনটি শূন্য ঘোষণা করে গত ২৩ এপ্রিল নির্বাচন কমিশন উপনির্বাচনের তফসিল ঘোষণা করে। ঘোষিত তফসিল অনুসারে নির্বাচনে ৫ জুন ভোট হওয়ার কথা।

এ অবস্থায় নির্বাচনী আবেদনের নিষ্পত্তি না হওয়া পর্যন্ত উপনির্বাচনের তফসিল স্থগিত চেয়ে নজরুল ইসলাম আবেদন করেন। আদালতে তাঁর পক্ষে শুনানি করেন আইনজীবী সৈয়দ মামুন মাহবুব। নির্বাচন কমিশনের পক্ষে শুনানিতে ছিলেন আইনজীবী মোহাম্মদ খালেকুজ্জামান ভূঁইয়া।

নির্বাচন কমিশনের আইনজীবী খালেকুজ্জামান ভূঁইয়া গণমাধ্যমকে বলেছেন, নির্বাচনী আবেদনের নিষ্পত্তি না হওয়া পর্যন্ত ঝিনাইদহ–১ আসনের উপনির্বাচনের তফসিল স্থগিত চেয়ে নজরুল ইসলাম আবেদন করেন। শুনানি নিয়ে হাইকোর্ট ২১ দিনের জন্য উপনির্বাচনের তফসিল স্থগিত করেছেন। আজ থেকে এই ২১ দিন গণনা শুরু হবে। নির্বাচন কমিশনের সঙ্গে আলোচনা সাপেক্ষে এ বিষয়ে পরবর্তী পদক্ষেপ নেওয়া হবে।

কালের চিঠি / আশিকুর।

Tag :
Popular Post

কোটা বিরোধী আন্দোলনে ঢাকায় ২ শিক্ষার্থী নিহত

ঝিনাইদহ-১ আসনের উপ-নির্বাচন স্থগিত

Update Time : ০৩:৫৬:০৬ অপরাহ্ন, সোমবার, ৬ মে ২০২৪

 

ঝিনাইদহ–১ আসনের উপনির্বাচনের তফসিল ২১ দিনের জন্য স্থগিত করেছেন হাইকোর্ট। উপনির্বাচনের তফসিল স্থগিত চেয়ে করা এক আবেদনের শুনানি নিয়ে বিচারপতি মো. জাকির হোসেনের একক হাইকোর্ট বেঞ্চ সোমবার (৬ মে) এ আদেশ দেন।

এর আগে দ্বাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে গত ৭ জানুয়ারি ভোট হয়। নির্বাচিতদের ফলাফলের গেজেট গত ৯ জানুয়ারি প্রকাশ করা হয়। ঝিনাইদহ-১ আসনে সংসদ সদস্য হিসেবে নৌকা প্রতীকের প্রার্থী আবদুল হাই নির্বাচিত হন। তবে ঝিনাইদহ–১ আসনে ভোটে অনিয়মের অভিযোগ তুলে পরাজিত স্বতন্ত্র প্রার্থী নজরুল ইসলাম হাইকোর্টে নির্বাচনী আবেদন (ইলেকশন পিটিশন) করেন। শুনানি নিয়ে গত ১ ফেব্রুয়ারি হাইকোর্ট রুল দিয়ে ঝিনাইদহ-১ আসনে মো. আব্দুল হাইকে বিজয়ী ঘোষণা করে প্রকাশিত নির্বাচন কমিশনের (ইসি) গেজেট দুই মাসের জন্য স্থগিত করেন।

এই আদেশ স্থগিত চেয়ে মো. আব্দুল হাই আপিল বিভাগে আবেদন করেন, যার ওপর গত ৫ ফেব্রুয়ারি চেম্বার আদালতে শুনানি হয়। সেদিন চেম্বার আদালত হাইকোর্টের আদেশ স্থগিত করে আবেদনটি আপিল বিভাগের নিয়মিত বেঞ্চে ১৩ মে শুনানির জন্য পাঠান। আব্দুল হাই সংসদ সদস্য হিসেবে দায়িত্ব নেন। চিকিৎসাধীন অবস্থায় গত ১৬ মার্চ তিনি মারা যান। আসনটি শূন্য ঘোষণা করে গত ২৩ এপ্রিল নির্বাচন কমিশন উপনির্বাচনের তফসিল ঘোষণা করে। ঘোষিত তফসিল অনুসারে নির্বাচনে ৫ জুন ভোট হওয়ার কথা।

এ অবস্থায় নির্বাচনী আবেদনের নিষ্পত্তি না হওয়া পর্যন্ত উপনির্বাচনের তফসিল স্থগিত চেয়ে নজরুল ইসলাম আবেদন করেন। আদালতে তাঁর পক্ষে শুনানি করেন আইনজীবী সৈয়দ মামুন মাহবুব। নির্বাচন কমিশনের পক্ষে শুনানিতে ছিলেন আইনজীবী মোহাম্মদ খালেকুজ্জামান ভূঁইয়া।

নির্বাচন কমিশনের আইনজীবী খালেকুজ্জামান ভূঁইয়া গণমাধ্যমকে বলেছেন, নির্বাচনী আবেদনের নিষ্পত্তি না হওয়া পর্যন্ত ঝিনাইদহ–১ আসনের উপনির্বাচনের তফসিল স্থগিত চেয়ে নজরুল ইসলাম আবেদন করেন। শুনানি নিয়ে হাইকোর্ট ২১ দিনের জন্য উপনির্বাচনের তফসিল স্থগিত করেছেন। আজ থেকে এই ২১ দিন গণনা শুরু হবে। নির্বাচন কমিশনের সঙ্গে আলোচনা সাপেক্ষে এ বিষয়ে পরবর্তী পদক্ষেপ নেওয়া হবে।

কালের চিঠি / আশিকুর।