রবিবার, ২১ জুলাই ২০২৪, ৬ শ্রাবণ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

রেকর্ড ভেঙেছে আজ মৌসুমের তাপমাত্রা, চুয়াডাঙ্গায় ৪২ দশমিক ৭ ডিগ্রি

বৈশাখের শুরু থেকেই কখনও মৃদু থেকে মাঝারি আবার কখনও তীব্র তাপপ্রবাহ থেকে অতি তীব্র তাপপ্রবাহ বয়ে চলছে চুয়াডাঙ্গার ওপর দিয়ে। তবে চলতি মৌসুমের সব রেকর্ড ভেঙে এ জেলার তাপমাত্রা দাঁড়িয়েছে ৪২ দশমিক ৭ ডিগ্রি সেলসিয়াসে। তাপপ্রবাহ বইছে তীব্র আকারের। টানা তাপদাহে অতিষ্ঠ জেলার মানুষ। অসহ্য গরমে ওষ্ঠাগত হয়ে উঠেছে জনজীবন।

শুক্রবার (২৬ এপ্রিল) দুপুর তিনটায় চুয়াডাঙ্গার আঞ্চলিক আবহাওয়া পযবেক্ষণাগার ৪২ দশমিক ৭ ডিগ্রি তাপমাত্রা রেকর্ড করে। এ সময় বাতাসের আর্দ্রতার পরিমাণ ছিল ১১ শতাংশ। যা দুপুর তিনটা পর্যন্ত সারাদেশের মধ্যে সর্বোচ্চ তাপমাত্রা।

এদিকে, দিনের শুরু থেকেই উত্তাপ ছড়িয়েছে সূর্যের তাপ। বেলা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে তাপের মাত্রা তীব্র হতে থাকে। সারাদিনই যেন আগুন ঝরে আকাশ থেকে। বাতাসে বয়ে যায় আগুনের ছটা। সড়কে কম রয়েছে যানবাহনের চাপ। গরমের নাভিশ্বাসে হা-হুতাশ সাধারণ মানুষের।

শহরের ইজিবাকইক চালক আলমগীর আলম বলেন, রাস্তা থেকে মনে হচ্ছে আগুনের আঁচ উঠছে। আবার মাথার উপরে সূর্য সবকিছু তাতিয়ে দিচ্ছে। একটু গাড়ি চালালেই ক্লান্ত হয় পড়তে হচ্ছে। গাছের নিচে বিশ্রাম করে আবার কাজ শুরু করতে হচ্ছে তাদেরকে।

এদিকে, রোদের প্রখরতায় রাস্তার পিচ গলতে শুরু করেছে। গরম বাড়ার সাথে সাথে চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালসহ উপজেলা স্বাস্থ্য কেন্দ্রগুলোতে প্রতিদিন রোগীর সংখ্যা বাড়ছে। যাদের মধ্যে বেশির ভাগই শিশু।

চুয়াডাঙ্গা আবহাওয়া অফিসের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা জামিনুর রহমান বলেন, চুয়াডাঙ্গার ওপর দিয়ে তীব্র তাপপ্রবাহ বয়ে চলছে। এ অবস্থা আগামী ৩০ এপ্রিল পর্যন্ত চলতে পারে। তবে এখনই বৃষ্টি বা ঝড়ের সম্ভাবনা নেই বলেও জানান তিন।

কালের চিঠি / আলিফ

Tag :
Popular Post

কোটা বিরোধী আন্দোলনে ঢাকায় ২ শিক্ষার্থী নিহত

রেকর্ড ভেঙেছে আজ মৌসুমের তাপমাত্রা, চুয়াডাঙ্গায় ৪২ দশমিক ৭ ডিগ্রি

Update Time : ১০:৪৭:১৯ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ২৬ এপ্রিল ২০২৪

বৈশাখের শুরু থেকেই কখনও মৃদু থেকে মাঝারি আবার কখনও তীব্র তাপপ্রবাহ থেকে অতি তীব্র তাপপ্রবাহ বয়ে চলছে চুয়াডাঙ্গার ওপর দিয়ে। তবে চলতি মৌসুমের সব রেকর্ড ভেঙে এ জেলার তাপমাত্রা দাঁড়িয়েছে ৪২ দশমিক ৭ ডিগ্রি সেলসিয়াসে। তাপপ্রবাহ বইছে তীব্র আকারের। টানা তাপদাহে অতিষ্ঠ জেলার মানুষ। অসহ্য গরমে ওষ্ঠাগত হয়ে উঠেছে জনজীবন।

শুক্রবার (২৬ এপ্রিল) দুপুর তিনটায় চুয়াডাঙ্গার আঞ্চলিক আবহাওয়া পযবেক্ষণাগার ৪২ দশমিক ৭ ডিগ্রি তাপমাত্রা রেকর্ড করে। এ সময় বাতাসের আর্দ্রতার পরিমাণ ছিল ১১ শতাংশ। যা দুপুর তিনটা পর্যন্ত সারাদেশের মধ্যে সর্বোচ্চ তাপমাত্রা।

এদিকে, দিনের শুরু থেকেই উত্তাপ ছড়িয়েছে সূর্যের তাপ। বেলা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে তাপের মাত্রা তীব্র হতে থাকে। সারাদিনই যেন আগুন ঝরে আকাশ থেকে। বাতাসে বয়ে যায় আগুনের ছটা। সড়কে কম রয়েছে যানবাহনের চাপ। গরমের নাভিশ্বাসে হা-হুতাশ সাধারণ মানুষের।

শহরের ইজিবাকইক চালক আলমগীর আলম বলেন, রাস্তা থেকে মনে হচ্ছে আগুনের আঁচ উঠছে। আবার মাথার উপরে সূর্য সবকিছু তাতিয়ে দিচ্ছে। একটু গাড়ি চালালেই ক্লান্ত হয় পড়তে হচ্ছে। গাছের নিচে বিশ্রাম করে আবার কাজ শুরু করতে হচ্ছে তাদেরকে।

এদিকে, রোদের প্রখরতায় রাস্তার পিচ গলতে শুরু করেছে। গরম বাড়ার সাথে সাথে চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালসহ উপজেলা স্বাস্থ্য কেন্দ্রগুলোতে প্রতিদিন রোগীর সংখ্যা বাড়ছে। যাদের মধ্যে বেশির ভাগই শিশু।

চুয়াডাঙ্গা আবহাওয়া অফিসের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা জামিনুর রহমান বলেন, চুয়াডাঙ্গার ওপর দিয়ে তীব্র তাপপ্রবাহ বয়ে চলছে। এ অবস্থা আগামী ৩০ এপ্রিল পর্যন্ত চলতে পারে। তবে এখনই বৃষ্টি বা ঝড়ের সম্ভাবনা নেই বলেও জানান তিন।

কালের চিঠি / আলিফ