রবিবার, ১৬ জুন ২০২৪, ১ আষাঢ় ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

মন্ত্রী-এমপিদের স্বজনরা নির্দেশ না মানলে ব্যবস্থা: কাদের

উপজেলা নির্বাচনে মন্ত্রী ও এমপিদের নিকটাত্মীয় এবং স্বজনদের প্রার্থী না হতে দলীয় যে নির্দেশনা দেয়া হয়েছে, তা না মানলে সময়মতো সাংগঠনিক ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে সতর্ক করেছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের।

আজ বুধবার (২৪ এপ্রিল) দুপুরে ধানমন্ডিতে আওয়ামী লীগ সভাপতির রাজনৈতিক কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এসব কথা বলেন।

সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী বলেন, দলের মন্ত্রী-এমপি এমন পর্যায়ে যারা আছেন, তাদের সন্তান-স্বজনেরা যেন উপজেলা নির্বাচনে না আসেন, সেই নির্দেশনা রয়েছে। নির্বাচন কমিশনের আনুষ্ঠানিক সময়সীমার বাইরেও মনোনয়ন প্রত্যাহার করা যায়। এ বিষয়ে এখনও চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেয়ার সময় আছে।

ওবায়দুল কাদের বলেন, দলীয় নির্দেশনা অমান্য করলে শৃঙ্খলাভঙ্গের অভিযোগে ব্যবস্থা নেয়ার ব্যাপারে চিন্তা করা হবে। সময়মতো এ সিদ্ধান্ত অবশ্যই নেয়া হবে। এছাড়া, এবার উপজেলা নির্বাচনে দলের সিদ্ধান্তে তৃণমূলের কর্মীরা খুশি হয়েছেন।

দলের সিদ্ধান্ত মন্ত্রী-এমপিদের না মানা চেইন অব কমান্ড ভেঙে পড়ার লক্ষণ কিনা এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, দলের চেইন অব কমান্ড বারবার ভেঙে পড়লেও কোমড় সোজা করে বারবার দাঁড়িয়েছে আওয়ামী লীগ।

বিএনপির সঙ্গে পাল্টাপাল্টি কর্মসূচি পালনের ইস্যুতে ওবায়দুল কাদের বলেন, বিএনপির একতরফা সমাবেশ করতে গেলে সন্ত্রাসের শঙ্কা থাকে। তাই জানমালের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতেই আওয়ামী লীগ সমাবেশ করে থাকে। তবে এর জন্য কোনো সংঘাত হয়নি বলে জানান তিনি।

প্রসঙ্গত, আসন্ন ষষ্ঠ উপজেলা পরিষদ নির্বাচন এবার হবে চার ধাপে। ৮ মে প্রথম ধাপে ১৪৮টি উপজেলা পরিষদের নির্বাচনে ভোটগ্রহণ হবে। দ্বিতীয় ধাপে ১৬০ উপজেলায় ২১ মে, তৃতীয় ধাপে ১১২ উপজেলায় ২৯ মে এবং চতুর্থ ও শেষ ধাপে ৫৫ উপজেলায় ভোট ভোট হবে ৫ জুন। নির্ধারিত দিনে সকাল ৮টা থেকে বিকাল ৪টা পর্যন্ত একটানা ভোটগ্রহণ চলবে।

কালের চিঠি / আলিফ

Tag :

মন্ত্রী-এমপিদের স্বজনরা নির্দেশ না মানলে ব্যবস্থা: কাদের

Update Time : ১০:৫৪:০০ পূর্বাহ্ন, বুধবার, ২৪ এপ্রিল ২০২৪

উপজেলা নির্বাচনে মন্ত্রী ও এমপিদের নিকটাত্মীয় এবং স্বজনদের প্রার্থী না হতে দলীয় যে নির্দেশনা দেয়া হয়েছে, তা না মানলে সময়মতো সাংগঠনিক ব্যবস্থা নেয়া হবে বলে সতর্ক করেছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের।

আজ বুধবার (২৪ এপ্রিল) দুপুরে ধানমন্ডিতে আওয়ামী লীগ সভাপতির রাজনৈতিক কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এসব কথা বলেন।

সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী বলেন, দলের মন্ত্রী-এমপি এমন পর্যায়ে যারা আছেন, তাদের সন্তান-স্বজনেরা যেন উপজেলা নির্বাচনে না আসেন, সেই নির্দেশনা রয়েছে। নির্বাচন কমিশনের আনুষ্ঠানিক সময়সীমার বাইরেও মনোনয়ন প্রত্যাহার করা যায়। এ বিষয়ে এখনও চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেয়ার সময় আছে।

ওবায়দুল কাদের বলেন, দলীয় নির্দেশনা অমান্য করলে শৃঙ্খলাভঙ্গের অভিযোগে ব্যবস্থা নেয়ার ব্যাপারে চিন্তা করা হবে। সময়মতো এ সিদ্ধান্ত অবশ্যই নেয়া হবে। এছাড়া, এবার উপজেলা নির্বাচনে দলের সিদ্ধান্তে তৃণমূলের কর্মীরা খুশি হয়েছেন।

দলের সিদ্ধান্ত মন্ত্রী-এমপিদের না মানা চেইন অব কমান্ড ভেঙে পড়ার লক্ষণ কিনা এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, দলের চেইন অব কমান্ড বারবার ভেঙে পড়লেও কোমড় সোজা করে বারবার দাঁড়িয়েছে আওয়ামী লীগ।

বিএনপির সঙ্গে পাল্টাপাল্টি কর্মসূচি পালনের ইস্যুতে ওবায়দুল কাদের বলেন, বিএনপির একতরফা সমাবেশ করতে গেলে সন্ত্রাসের শঙ্কা থাকে। তাই জানমালের নিরাপত্তা নিশ্চিত করতেই আওয়ামী লীগ সমাবেশ করে থাকে। তবে এর জন্য কোনো সংঘাত হয়নি বলে জানান তিনি।

প্রসঙ্গত, আসন্ন ষষ্ঠ উপজেলা পরিষদ নির্বাচন এবার হবে চার ধাপে। ৮ মে প্রথম ধাপে ১৪৮টি উপজেলা পরিষদের নির্বাচনে ভোটগ্রহণ হবে। দ্বিতীয় ধাপে ১৬০ উপজেলায় ২১ মে, তৃতীয় ধাপে ১১২ উপজেলায় ২৯ মে এবং চতুর্থ ও শেষ ধাপে ৫৫ উপজেলায় ভোট ভোট হবে ৫ জুন। নির্ধারিত দিনে সকাল ৮টা থেকে বিকাল ৪টা পর্যন্ত একটানা ভোটগ্রহণ চলবে।

কালের চিঠি / আলিফ