মঙ্গলবার, ২১ মে ২০২৪, ৭ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

টি-টিয়োন্টি বিশ্বকাপের দল গঠন নিয়ে যা জানালেন সুজন

 

চলতি বছরের জুনে ওয়েস্ট ইন্ডিজ ও আমেরিকার মাটিতে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের নবম আসর অনুষ্ঠিত হবে। ক্রিকেট বিশ্বকাপের এ ফরমেটে ইতিহাসের সবচেয়ে বেশি ২০টি দল অংশগ্রহণ করবে এ আসরে। তাই এরই মধ্যে বিশ্বকাপের পরিকল্পনা শুরু করেছে বাংলাদেশ দল।

রোববার (১৪ এপ্রিল) বিসিবির পরিচালক ও ঢাকা আবাহনীর কোচ খালেদ মাহমুদ সুজন বাংলাদেশের বিশ্বকাপের দল গঠন নিয়ে কথা বলেছেন।

তিনি বলেন, যারা বিশ্বকাপে খেলবে। যাদের সিলেক্টর, কোচ, অধিনায়ক ও ম্যানেজমেন্ট বিশ্বাস করবে তাদের আসলে জিম্বাবুয়ে সিরিজ থেকে শুরু করা উচিত। কারণ হাতে তো বেশি সময় নেই, এরকম না যে দুইটা ম্যাচ এ খেললো, দুইটা ম্যাচ ও খেললো, আবার দুজনেই ফেইল করলো।

বিসিবির পরিচালক বলেন, তখন পাঁচ নাম্বার ম্যাচে কাকে নিয়ে খেলবেন আসলে। আপনি কনফিডেন্স নষ্ট করলেন দুইটা ছেলের। ওরকম না করে, একটা ছেলেকেই চারটা ম্যাচেই খেলান। যদি দুই ম্যাচে ফেইলও করে, তারপরও সুযোগ থাকবে তৃতীয়-চতুর্থ ম্যাচের রান করে কনফিডেন্স বিল্ডআপ করার।

ঈদের ছুটি শেষে সোমবার (১৫ এপ্রিল) থেকে মাঠে গড়াচ্ছে ডিপিএল। এদিন মুখোমুখি হবে আবাহনী-প্রাইম ব্যাংক।

সুজন বলেন, বিপিএলে যখন সালাউদ্দিনের মুখোমুখি হই, তখন আমার কাছে মনে হয় যে আমি মনে হয় ওর কাছাকাছিও না। এটা তো একটা টিমের ওপর ডিপেন্ড করে। আমি যখন ঢাকা টিম নিয়ে খেলি, তারপরও আমি কুমিল্লাকে হারিয়েছিলাম। ঐ সময় মনে হয় যে একটা পার্থক্য থাকে। কিন্তু প্রিমিয়ার লিগে এসে আমরা কাছাকাছি। সালাউদ্দিনের কোচিংয়ের ধরণ একরকম আমার একরকম। ও যে বাংলাদেশের অনত্যম সেরা কোচ এটা অস্বীকার করার উপায় নেই। বিপিএলে ওর টিম অনেক স্ট্রং থাকে তাই কথা বলার মতো সুযোগই থাকে না কিন্তু প্রিমিয়ার লিগে গত কয়েক বছরে ও আমার সাথে পেরে উঠছে না।

কালের চিঠি/ ফাহিম

Tag :

টি-টিয়োন্টি বিশ্বকাপের দল গঠন নিয়ে যা জানালেন সুজন

Update Time : ০৩:৪২:৫৯ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ১৫ এপ্রিল ২০২৪

 

চলতি বছরের জুনে ওয়েস্ট ইন্ডিজ ও আমেরিকার মাটিতে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের নবম আসর অনুষ্ঠিত হবে। ক্রিকেট বিশ্বকাপের এ ফরমেটে ইতিহাসের সবচেয়ে বেশি ২০টি দল অংশগ্রহণ করবে এ আসরে। তাই এরই মধ্যে বিশ্বকাপের পরিকল্পনা শুরু করেছে বাংলাদেশ দল।

রোববার (১৪ এপ্রিল) বিসিবির পরিচালক ও ঢাকা আবাহনীর কোচ খালেদ মাহমুদ সুজন বাংলাদেশের বিশ্বকাপের দল গঠন নিয়ে কথা বলেছেন।

তিনি বলেন, যারা বিশ্বকাপে খেলবে। যাদের সিলেক্টর, কোচ, অধিনায়ক ও ম্যানেজমেন্ট বিশ্বাস করবে তাদের আসলে জিম্বাবুয়ে সিরিজ থেকে শুরু করা উচিত। কারণ হাতে তো বেশি সময় নেই, এরকম না যে দুইটা ম্যাচ এ খেললো, দুইটা ম্যাচ ও খেললো, আবার দুজনেই ফেইল করলো।

বিসিবির পরিচালক বলেন, তখন পাঁচ নাম্বার ম্যাচে কাকে নিয়ে খেলবেন আসলে। আপনি কনফিডেন্স নষ্ট করলেন দুইটা ছেলের। ওরকম না করে, একটা ছেলেকেই চারটা ম্যাচেই খেলান। যদি দুই ম্যাচে ফেইলও করে, তারপরও সুযোগ থাকবে তৃতীয়-চতুর্থ ম্যাচের রান করে কনফিডেন্স বিল্ডআপ করার।

ঈদের ছুটি শেষে সোমবার (১৫ এপ্রিল) থেকে মাঠে গড়াচ্ছে ডিপিএল। এদিন মুখোমুখি হবে আবাহনী-প্রাইম ব্যাংক।

সুজন বলেন, বিপিএলে যখন সালাউদ্দিনের মুখোমুখি হই, তখন আমার কাছে মনে হয় যে আমি মনে হয় ওর কাছাকাছিও না। এটা তো একটা টিমের ওপর ডিপেন্ড করে। আমি যখন ঢাকা টিম নিয়ে খেলি, তারপরও আমি কুমিল্লাকে হারিয়েছিলাম। ঐ সময় মনে হয় যে একটা পার্থক্য থাকে। কিন্তু প্রিমিয়ার লিগে এসে আমরা কাছাকাছি। সালাউদ্দিনের কোচিংয়ের ধরণ একরকম আমার একরকম। ও যে বাংলাদেশের অনত্যম সেরা কোচ এটা অস্বীকার করার উপায় নেই। বিপিএলে ওর টিম অনেক স্ট্রং থাকে তাই কথা বলার মতো সুযোগই থাকে না কিন্তু প্রিমিয়ার লিগে গত কয়েক বছরে ও আমার সাথে পেরে উঠছে না।

কালের চিঠি/ ফাহিম