শনিবার, ২৫ মে ২০২৪, ১০ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

সরকার নির্ধারিত দামে এখনো মিলছে না সয়াবিন

 

সয়াবিন তেলের নতুন দর এখনও পুরোপরি কার্যকর হয়নি। সরকার প্রতি লিটারের দাম নির্ধারণ করে দিয়েছে ১৬৩ টাকা। গত ১ মার্চ থেকে নতুন দর কার্যকরের কথা জানানো হয়েছিল। পরে বাণিজ্য প্রতিমন্ত্রী আহসানুল ইসলাম টিটু জানিয়েছিলেন রোববার থেকে সারা দেশে নির্ধারিত মূল্যে সয়াবিন বিক্রি নিশ্চিত করা হবে।

তবে সোমবারও (৪ মার্চ) রাজধানীসহ দেশের বেশিরভাগ বাজারে আগের দামেই তেল কিনতে হচ্ছে ক্রেতাদের। এতে সরকারের নির্ধারণ করা দামের চেয়ে কেজিপ্রতি বাড়তি ১০ টাকা করে গুনতে হচ্ছে ভোক্তাদের। বোতলজাত প্রতি লিটার আগের দাম ১৭৩ টাকাই রাখা হচ্ছে বেশির ভাগ দোকানে।

দোকানিদের অভিযোগ, ডিলার পর্যায়ে থেকে নতুন দরের তেল সরবরাহে বিলম্ব হচ্ছে। তবে দোকান ভেদে নতুন দরেই সয়াবিন মিলছে। দোকারিরা আশা করছেন, দুই-একদিনের মধ্যে নতুন দরের সয়াবিন তেলের যোগান বাড়বে। আর দাম কমানোর পরও সেটি বাস্তবায়ন না হওয়ায় ক্ষোভ জানিয়েছেন ভোক্তারা।

এ বিষয়ে একজন ভোক্তা যমুনা টেলিভিশনকে বলেন, দাম কমানো হয়েছে চারদিন, তবে এখনও আগের দামেই বিক্রি হচ্ছে। দোকানিরা বলছে, নতুন তেল আসেনি তাই তারা দাম বেশি রাখছেন। কিন্তু দাম বাড়ালে তখন তো নতুনের জন্য অপেক্ষা করে না। দাম বাড়ার ঘোষণা দেয়ার সাথে সাথেই তারা সেটি বাস্তবায়ন করে ফেলেন। এ বিষয়ে প্রশাসনকে কঠোর হওয়ার অনুরোধও জানান তিনি।

কালের চিঠি / আলিফ

Tag :

সরকার নির্ধারিত দামে এখনো মিলছে না সয়াবিন

Update Time : ১১:৪৬:২৪ পূর্বাহ্ন, সোমবার, ৪ মার্চ ২০২৪

 

সয়াবিন তেলের নতুন দর এখনও পুরোপরি কার্যকর হয়নি। সরকার প্রতি লিটারের দাম নির্ধারণ করে দিয়েছে ১৬৩ টাকা। গত ১ মার্চ থেকে নতুন দর কার্যকরের কথা জানানো হয়েছিল। পরে বাণিজ্য প্রতিমন্ত্রী আহসানুল ইসলাম টিটু জানিয়েছিলেন রোববার থেকে সারা দেশে নির্ধারিত মূল্যে সয়াবিন বিক্রি নিশ্চিত করা হবে।

তবে সোমবারও (৪ মার্চ) রাজধানীসহ দেশের বেশিরভাগ বাজারে আগের দামেই তেল কিনতে হচ্ছে ক্রেতাদের। এতে সরকারের নির্ধারণ করা দামের চেয়ে কেজিপ্রতি বাড়তি ১০ টাকা করে গুনতে হচ্ছে ভোক্তাদের। বোতলজাত প্রতি লিটার আগের দাম ১৭৩ টাকাই রাখা হচ্ছে বেশির ভাগ দোকানে।

দোকানিদের অভিযোগ, ডিলার পর্যায়ে থেকে নতুন দরের তেল সরবরাহে বিলম্ব হচ্ছে। তবে দোকান ভেদে নতুন দরেই সয়াবিন মিলছে। দোকারিরা আশা করছেন, দুই-একদিনের মধ্যে নতুন দরের সয়াবিন তেলের যোগান বাড়বে। আর দাম কমানোর পরও সেটি বাস্তবায়ন না হওয়ায় ক্ষোভ জানিয়েছেন ভোক্তারা।

এ বিষয়ে একজন ভোক্তা যমুনা টেলিভিশনকে বলেন, দাম কমানো হয়েছে চারদিন, তবে এখনও আগের দামেই বিক্রি হচ্ছে। দোকানিরা বলছে, নতুন তেল আসেনি তাই তারা দাম বেশি রাখছেন। কিন্তু দাম বাড়ালে তখন তো নতুনের জন্য অপেক্ষা করে না। দাম বাড়ার ঘোষণা দেয়ার সাথে সাথেই তারা সেটি বাস্তবায়ন করে ফেলেন। এ বিষয়ে প্রশাসনকে কঠোর হওয়ার অনুরোধও জানান তিনি।

কালের চিঠি / আলিফ