রবিবার, ২৬ মে ২০২৪, ১২ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

বিপিএলে বরিশাল-কুমিল্লার শ্রেষ্ঠত্বের লড়াই

 

হারাধনের সাতটি ছেলে, রইলো বাকি দুই। কার মাথায় উঠবে জয়ের মুকুট, কে হাসবে বিজয়ের হাসি? কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স নাকি ফরচুন বরিশাল— জবাবটা মিলবে শুক্রবার রাতে। মিরপুর শেরে বাংলা ক্রিকেট স্টেডিয়ামে সন্ধ্যা সাড়ে ৬টায় মাঠে গড়াবে বিপিএলের শিরোপা যুদ্ধ ।

 

দুই দলের মধ্যে পরিসংখ্যানে বেশ এগিয়ে কুমিল্লা। চারবার শিরোপা জিতে এখন পর্যন্ত বিপিএলের সবচেয়ে সফল দল তারা। দুর্দান্ত ছন্দে থাকা লিটন-হৃদয়দের লক্ষ্য পঞ্চম শিরোপা ঘরে তোলার। অন্যদিকে, এর আগে দুইবার ফাইনাল খেলেও শিরোপা জিততে পারেনি বরিশাল। আক্ষেপ ঘুচিয়ে প্রথম শিরোপা জয়ের স্বপ্নে বিভোর তামিমের দল।

 

বিপিএলে চারবারের চ্যাম্পিয়ন কুমিল্লা চলতি আসরেও অবিশ্বাস্য ছন্দে ছিল। হার দিয়ে আসর শুরু করলেও জয়ের ছন্দে ফিরতে ফিরতে সময় লাগেনি কুমিল্লার। লিগ পর্বে পয়েন্ট টেবিলের দুইয়ে থেকে প্লে-অফ নিশ্চিত করে দলটি। প্রথম কোয়ালিফায়ারে সাকিবের রংপুরকে উড়িয়ে সহজেই নিশ্চিত করে ফাইনাল।

 

তামিমের দলের জন্য অবশ্য ফাইনাল নিশ্চিতটা মোটেও সহজ ছিল না। পুরো টুর্নামেন্টজুড়ে জয়ের পাশাপাশি বেশকিছু ম্যাচে হেরে প্লে-অফে যাওয়া কঠিন করে তোলে বরিশাল। শেষ চার নিশ্চিতে শেষ ম্যাচ পর্যন্ত অপেক্ষা করতে হয় দলটিকে। পরবর্তীতে প্লে-অফে চট্টগ্রাম ও রংপুরকে উড়িয়ে ফাইনালে জায়গা করে নেয় বরিশাল।

 

কুমিল্লার জন্য অন্যতম শক্তির জায়গা তাদের ব্যাটিং ইউনিট। যেখানে লিটন-হৃদয়দের মতো পরীক্ষিতদের পাশাপাশি রাসেল-নারিনদের মতো তারকারাও আছেন। যারা মুহূর্তেই যেকোনো ম্যাচের মোড় ঘুড়িয়ে দিতে যথেষ্ঠ। কুমিল্লার ভক্তদের জন্য স্বস্তির খবর, ফাইনালে খেলার ছাড়পত্র পেয়েছেন পেসার মুস্তাফিজুর রহমান। ম্যাচের আগেরদিন অনুশীলন করেছেন দলের সঙ্গে।

 

বরিশালের ভক্তদের জন্যও আছেন সুখবর। দক্ষিণ আফ্রিকান তারকা ব্যাটার ডেভিড মিলার ফাইনালে খেলছেন। ব্যক্তিগত কারণে তার ফাইনাল খেলা নিয়ে শঙ্কা ছিল। প্লে-অফে নিজের সেরাটা দিতে না পারলেও ফাইনালে মিলারের জ্বলে ওঠাটা খুবই জরুরী। পাশাপাশি তামিম-মুশফিকদের ছন্দময় ব্যাটিং দলটিকে বাড়তি অনুপ্রেরণা যোগাচ্ছে।

 

এই ম্যাচে টস বড় ফ্যাক্টর হতে পারে। কেননা চলতি বিপিএলে যতগুলো ম্যাচ হয়েছে মিরপুরে, তার বেশিরভাগ ম্যাচেই পরে ব্যাটিং করা দল জিতেছে। সেই হিসেবে ফাইনালে টস জিতেও যে আগে বোলিং করতে চাইবে অধিনায়কেরা, তা তো অনুমতিই।

 

কখনও শিরোপা না জেতা বরিশালকে প্রথম শিরোপার স্বাদ দিতে চান অলরাউন্ডার মেহেদী হাসান মিরাজ। গণমাধ্যমে তিনি বলেন, ‘কখনও বিপিএলে ট্রফি জেতেনি বরিশাল। যদি চ্যাম্পিয়ন হতে পারি, এবারই প্রথম চ্যাম্পিয়ন হব। এর আগে দুবার ফাইনাল খেলেছি, এটা নিয়ে তৃতীয়বার হবে। চ্যাম্পিয়ন হওয়ার জন্যই খেলব। মাঠে যারা ভালো খেলবে, তারাই জিতবে।’

 

ফাইনাল খেলার অভ্যস্ততা থাকায় পঞ্চম শিরোপা ঘরে তুলতেও খুব একটা কষ্ট হবে না বলে মত কুমিল্লার উইকেটরক্ষক ব্যাটার জাকের আলি অনিকের। তিনি বলেন,‘ কুমিল্লা ফাইনাল খেলতে অভ্যস্ত। আমরা দল হিসেবে জানি, কীভাবে বড় ম্যাচে পারফর্ম করতে হয়। আমাদের মনোযোগ সেখানেই থাকবে। যেহেতু ম্যাচটি ফাইনাল, অবশ্যই বরিশাল ভালো খেলেই এত দূর এসেছে। আমরা প্রতিপক্ষ হিসেবে সব দলকেই সম্মান করি। ফাইনালেও এর ব্যতিক্রম হবে না। সব সময় চেষ্টা করি সেরা ক্রিকেট খেলতে, ফাইনালেও সেরাটা খেলার চেষ্টা করব ‘

 

প্রস্তুতি শেষ, এবার মাঠে নামার পালা। দেখার বিষয়, কার মুখে ফুটে শেষ হাসি। ট্রফি হাতে উচ্ছ্বাসে মাতে কোন দল- তামিমের ফরচুন বরিশাল নাকি লিটনের কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স? উত্তর জানতে অপেক্ষা মাত্র কয়েক ঘণ্টার।

 

কালের চিঠি/ ফাহিম

Tag :

বিপিএলে বরিশাল-কুমিল্লার শ্রেষ্ঠত্বের লড়াই

Update Time : ০৫:৫৭:২৬ পূর্বাহ্ন, শুক্রবার, ১ মার্চ ২০২৪

 

হারাধনের সাতটি ছেলে, রইলো বাকি দুই। কার মাথায় উঠবে জয়ের মুকুট, কে হাসবে বিজয়ের হাসি? কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স নাকি ফরচুন বরিশাল— জবাবটা মিলবে শুক্রবার রাতে। মিরপুর শেরে বাংলা ক্রিকেট স্টেডিয়ামে সন্ধ্যা সাড়ে ৬টায় মাঠে গড়াবে বিপিএলের শিরোপা যুদ্ধ ।

 

দুই দলের মধ্যে পরিসংখ্যানে বেশ এগিয়ে কুমিল্লা। চারবার শিরোপা জিতে এখন পর্যন্ত বিপিএলের সবচেয়ে সফল দল তারা। দুর্দান্ত ছন্দে থাকা লিটন-হৃদয়দের লক্ষ্য পঞ্চম শিরোপা ঘরে তোলার। অন্যদিকে, এর আগে দুইবার ফাইনাল খেলেও শিরোপা জিততে পারেনি বরিশাল। আক্ষেপ ঘুচিয়ে প্রথম শিরোপা জয়ের স্বপ্নে বিভোর তামিমের দল।

 

বিপিএলে চারবারের চ্যাম্পিয়ন কুমিল্লা চলতি আসরেও অবিশ্বাস্য ছন্দে ছিল। হার দিয়ে আসর শুরু করলেও জয়ের ছন্দে ফিরতে ফিরতে সময় লাগেনি কুমিল্লার। লিগ পর্বে পয়েন্ট টেবিলের দুইয়ে থেকে প্লে-অফ নিশ্চিত করে দলটি। প্রথম কোয়ালিফায়ারে সাকিবের রংপুরকে উড়িয়ে সহজেই নিশ্চিত করে ফাইনাল।

 

তামিমের দলের জন্য অবশ্য ফাইনাল নিশ্চিতটা মোটেও সহজ ছিল না। পুরো টুর্নামেন্টজুড়ে জয়ের পাশাপাশি বেশকিছু ম্যাচে হেরে প্লে-অফে যাওয়া কঠিন করে তোলে বরিশাল। শেষ চার নিশ্চিতে শেষ ম্যাচ পর্যন্ত অপেক্ষা করতে হয় দলটিকে। পরবর্তীতে প্লে-অফে চট্টগ্রাম ও রংপুরকে উড়িয়ে ফাইনালে জায়গা করে নেয় বরিশাল।

 

কুমিল্লার জন্য অন্যতম শক্তির জায়গা তাদের ব্যাটিং ইউনিট। যেখানে লিটন-হৃদয়দের মতো পরীক্ষিতদের পাশাপাশি রাসেল-নারিনদের মতো তারকারাও আছেন। যারা মুহূর্তেই যেকোনো ম্যাচের মোড় ঘুড়িয়ে দিতে যথেষ্ঠ। কুমিল্লার ভক্তদের জন্য স্বস্তির খবর, ফাইনালে খেলার ছাড়পত্র পেয়েছেন পেসার মুস্তাফিজুর রহমান। ম্যাচের আগেরদিন অনুশীলন করেছেন দলের সঙ্গে।

 

বরিশালের ভক্তদের জন্যও আছেন সুখবর। দক্ষিণ আফ্রিকান তারকা ব্যাটার ডেভিড মিলার ফাইনালে খেলছেন। ব্যক্তিগত কারণে তার ফাইনাল খেলা নিয়ে শঙ্কা ছিল। প্লে-অফে নিজের সেরাটা দিতে না পারলেও ফাইনালে মিলারের জ্বলে ওঠাটা খুবই জরুরী। পাশাপাশি তামিম-মুশফিকদের ছন্দময় ব্যাটিং দলটিকে বাড়তি অনুপ্রেরণা যোগাচ্ছে।

 

এই ম্যাচে টস বড় ফ্যাক্টর হতে পারে। কেননা চলতি বিপিএলে যতগুলো ম্যাচ হয়েছে মিরপুরে, তার বেশিরভাগ ম্যাচেই পরে ব্যাটিং করা দল জিতেছে। সেই হিসেবে ফাইনালে টস জিতেও যে আগে বোলিং করতে চাইবে অধিনায়কেরা, তা তো অনুমতিই।

 

কখনও শিরোপা না জেতা বরিশালকে প্রথম শিরোপার স্বাদ দিতে চান অলরাউন্ডার মেহেদী হাসান মিরাজ। গণমাধ্যমে তিনি বলেন, ‘কখনও বিপিএলে ট্রফি জেতেনি বরিশাল। যদি চ্যাম্পিয়ন হতে পারি, এবারই প্রথম চ্যাম্পিয়ন হব। এর আগে দুবার ফাইনাল খেলেছি, এটা নিয়ে তৃতীয়বার হবে। চ্যাম্পিয়ন হওয়ার জন্যই খেলব। মাঠে যারা ভালো খেলবে, তারাই জিতবে।’

 

ফাইনাল খেলার অভ্যস্ততা থাকায় পঞ্চম শিরোপা ঘরে তুলতেও খুব একটা কষ্ট হবে না বলে মত কুমিল্লার উইকেটরক্ষক ব্যাটার জাকের আলি অনিকের। তিনি বলেন,‘ কুমিল্লা ফাইনাল খেলতে অভ্যস্ত। আমরা দল হিসেবে জানি, কীভাবে বড় ম্যাচে পারফর্ম করতে হয়। আমাদের মনোযোগ সেখানেই থাকবে। যেহেতু ম্যাচটি ফাইনাল, অবশ্যই বরিশাল ভালো খেলেই এত দূর এসেছে। আমরা প্রতিপক্ষ হিসেবে সব দলকেই সম্মান করি। ফাইনালেও এর ব্যতিক্রম হবে না। সব সময় চেষ্টা করি সেরা ক্রিকেট খেলতে, ফাইনালেও সেরাটা খেলার চেষ্টা করব ‘

 

প্রস্তুতি শেষ, এবার মাঠে নামার পালা। দেখার বিষয়, কার মুখে ফুটে শেষ হাসি। ট্রফি হাতে উচ্ছ্বাসে মাতে কোন দল- তামিমের ফরচুন বরিশাল নাকি লিটনের কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স? উত্তর জানতে অপেক্ষা মাত্র কয়েক ঘণ্টার।

 

কালের চিঠি/ ফাহিম