বৃহস্পতিবার, ২৫ এপ্রিল ২০২৪, ১২ বৈশাখ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

দেশে করোনার নতুন সাব -ভ্যারিয়েন্ট জেএনওয়ান শনাক্ত

দেশে করোনার নতুন সাব-ভ্যারিয়েন্ট ‘জেএন.ওয়ান’ শনাক্ত

দেশে করোনার সাব-ভ্যারিয়েন্ট ‘জেএন.ওয়ান’ শনাক্ত করেছে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ে (বিএসএমএমইউ)। দুই ডোজ ভ্যাকসিন নেয়ার পরও কেউ এই সাব ভ্যারিয়েন্টে আক্রান্ত হতে পারে বলে জানিয়েছেন বিএসএমএমইউ উপাচার্য।

মঙ্গলবার (২০ ফেব্রুয়ারি) সকালে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয় করোনা ভাইরাসের সবশেষ জেনোম সিকোয়েন্সিং গবেষণার ফলাফল প্রকাশ করে।

বিএসএমএমইউ উপাচার্য অধ্যাপক ডা. মো. শারফুদ্দিন আহমেদ জানান, বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা বছরের শুরুতে নতুন সাব-ভ্যারিয়েন্ট ‘জেএন.ওয়ান’-এর কথা জানায়। জানুয়ারি মাসের তৃতীয় সপ্তাহ থেকে ফেব্রুয়ারি মাসের প্রথম সপ্তাহ পর্যন্ত কোভিড আক্রান্ত ৪৮ রোগীর স্যাম্পল নিয়ে জিনোম সিকোয়েন্সিং করে বিএসএমএমইউ। গবেষণায় তিন জন রোগীর দেহে নতুন এই সাব-ভ্যারিয়েন্ট শনাক্ত হয়।

উপাচার্য আরও জানান, আক্রান্তদের একজন এসেছে দেশের বাইরে থেকে। জ্বর, সর্দি, গলাব্যথা, মাথাব্যথা ও হালকা কাশি এই ভ্যারিয়েন্টের লক্ষণ। মৃদু উপসর্গ হলেও সংক্রমণের মাত্রা বেশি হওয়ায় জ্বর, ঠান্ডা হলেই করোনা টেস্ট করানোর অনুরোধ করেন তিনি।

কালের চিঠি / আলিফ

Tag :

দেশে করোনার নতুন সাব -ভ্যারিয়েন্ট জেএনওয়ান শনাক্ত

Update Time : ১০:১০:৫০ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ২০ ফেব্রুয়ারী ২০২৪

দেশে করোনার নতুন সাব-ভ্যারিয়েন্ট ‘জেএন.ওয়ান’ শনাক্ত

দেশে করোনার সাব-ভ্যারিয়েন্ট ‘জেএন.ওয়ান’ শনাক্ত করেছে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয়ে (বিএসএমএমইউ)। দুই ডোজ ভ্যাকসিন নেয়ার পরও কেউ এই সাব ভ্যারিয়েন্টে আক্রান্ত হতে পারে বলে জানিয়েছেন বিএসএমএমইউ উপাচার্য।

মঙ্গলবার (২০ ফেব্রুয়ারি) সকালে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিক্যাল বিশ্ববিদ্যালয় করোনা ভাইরাসের সবশেষ জেনোম সিকোয়েন্সিং গবেষণার ফলাফল প্রকাশ করে।

বিএসএমএমইউ উপাচার্য অধ্যাপক ডা. মো. শারফুদ্দিন আহমেদ জানান, বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা বছরের শুরুতে নতুন সাব-ভ্যারিয়েন্ট ‘জেএন.ওয়ান’-এর কথা জানায়। জানুয়ারি মাসের তৃতীয় সপ্তাহ থেকে ফেব্রুয়ারি মাসের প্রথম সপ্তাহ পর্যন্ত কোভিড আক্রান্ত ৪৮ রোগীর স্যাম্পল নিয়ে জিনোম সিকোয়েন্সিং করে বিএসএমএমইউ। গবেষণায় তিন জন রোগীর দেহে নতুন এই সাব-ভ্যারিয়েন্ট শনাক্ত হয়।

উপাচার্য আরও জানান, আক্রান্তদের একজন এসেছে দেশের বাইরে থেকে। জ্বর, সর্দি, গলাব্যথা, মাথাব্যথা ও হালকা কাশি এই ভ্যারিয়েন্টের লক্ষণ। মৃদু উপসর্গ হলেও সংক্রমণের মাত্রা বেশি হওয়ায় জ্বর, ঠান্ডা হলেই করোনা টেস্ট করানোর অনুরোধ করেন তিনি।

কালের চিঠি / আলিফ