শনিবার, ২৫ মে ২০২৪, ১০ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

বিএনপির লিফলেট বিতরণ শুর আজ

ঢাকাসহ সব সাংগঠনিক মহানগরে আজ থেকে টানা দুদিন লিফলেট বিতরণ কর্মসূচি পালন করবে বিএনপি। এ নিয়ে দলটি ব্যাপক প্রস্তুতি নিয়েছে। মহানগরওয়ারি গঠন করেছে টিম। ঢাকা মহানগরে স্থায়ী কমিটির সদস্যসহ সিনিয়র নেতারা কয়েকটি স্থানে লিফলেট বিতরণ করার কথা রয়েছে। একই কর্মসূচি পালন করবে এলডিপি, ১২ দলীয় জোট, জাতীয়তাবাদী সমমনা জোটসহ সমমনা রাজনৈতিক দলগুলো।

রোববার এক সংবাদ সম্মেলনে সরকারের পদত্যাগ, নেতাকর্মীদের মুক্তি, দ্রব্যমূল্যের ঊর্ধ্বগতি, ভারত-বাংলাদেশ এবং বাংলাদেশ-মিয়ানমার সীমান্তে হত্যার প্রতিবাদে ৬ দিনের কর্মসূচি ঘোষণা করে বিএনপি। ঘোষিত কর্মসূচি অনুযায়ী আজ ও আগামীকাল ঢাকাসহ দেশের সব মহানগরে গণসংযোগ ও লিফলেট বিতরণ করবে। ১৭ ফেব্রুয়ারি সব জেলা শহরে এবং ১৮ ও ১৯ ফেব্রুয়ারি সব উপজেলা, থানা, পৌরসভা ও ইউনিয়ন পর্যায়ে একই কর্মসূচি পালন করবে। এছাড়া ভারত ও মিয়ানমার সীমান্তে দেশ দুটির সীমান্তরক্ষীদের ছোড়া গুলিতে নিহত বাংলাদেশিদের স্মরণে ১৬ ফেব্রুয়ারি জুমার নামাজের পর দেশের সব মসজিদে দোয়ার আয়োজন করবে দলটি।

এর আগে দ্বাদশ সংসদ নির্বাচন বর্জনের পর বিএনপি সবশেষ গত ৩০ জানুয়ারি সংসদ অধিবেশনের শুরুর দিন ঢাকাসহ সারা দেশে কালো পতাকা মিছিলে কর্মসূচি পালন করে।

দলীয় সূত্রে জানা গেছে, ‘দেশ বাঁচাও, মানুষ বাঁচাও’ শিরোনামে লিফলেটে নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্যাদির সীমাহীন মূল্যবৃদ্ধির চিত্র, দুর্নীতি, নির্বাচন, মামলা-হামলা ও গ্রেফতারের সংক্ষিপ্ত চিত্র তুলে ধরা হয়েছে। লিফলেটের শেষে বলা হয়েছে, ‘গণতন্ত্র ও মানবাধিকার, ভোটাধিকার পুনঃপ্রতিষ্ঠার পাশাপাশি মাতৃভূমির স্বাধীনতা ও সার্বভৌমত্ব রক্ষার জন্য দেশের সব গণতন্ত্রকামী রাজনৈতিক দল, শ্রেণি-পেশার সংগঠন, সামাজিক-সাংস্কৃতিক সংগঠন ও সচেতন জনগণের ইস্পাত কঠিন ঐক্য ও অব্যাহত সাহসী লড়াই আজ সময়ের দাবি। আসুন, আমরা আরও ঐক্যবদ্ধ হই এবং গণতান্ত্রিক আন্দোলনের মাধ্যমে অনির্বাচিত অবৈধ সরকারের অবসান ঘটিয়ে তাদের অপশাসন, লুটপাট, দুর্নীতি, অনাচার, অত্যাচার থেকে দেশকে মুক্ত করি এবং নিজেরা মুক্ত হই। এই ন্যায়যুদ্ধে বিজয় আমাদেরই হবে।

কালের চিঠি / আশিকুর।

Tag :

বিএনপির লিফলেট বিতরণ শুর আজ

Update Time : ০৪:১৫:০৯ পূর্বাহ্ন, মঙ্গলবার, ১৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪

ঢাকাসহ সব সাংগঠনিক মহানগরে আজ থেকে টানা দুদিন লিফলেট বিতরণ কর্মসূচি পালন করবে বিএনপি। এ নিয়ে দলটি ব্যাপক প্রস্তুতি নিয়েছে। মহানগরওয়ারি গঠন করেছে টিম। ঢাকা মহানগরে স্থায়ী কমিটির সদস্যসহ সিনিয়র নেতারা কয়েকটি স্থানে লিফলেট বিতরণ করার কথা রয়েছে। একই কর্মসূচি পালন করবে এলডিপি, ১২ দলীয় জোট, জাতীয়তাবাদী সমমনা জোটসহ সমমনা রাজনৈতিক দলগুলো।

রোববার এক সংবাদ সম্মেলনে সরকারের পদত্যাগ, নেতাকর্মীদের মুক্তি, দ্রব্যমূল্যের ঊর্ধ্বগতি, ভারত-বাংলাদেশ এবং বাংলাদেশ-মিয়ানমার সীমান্তে হত্যার প্রতিবাদে ৬ দিনের কর্মসূচি ঘোষণা করে বিএনপি। ঘোষিত কর্মসূচি অনুযায়ী আজ ও আগামীকাল ঢাকাসহ দেশের সব মহানগরে গণসংযোগ ও লিফলেট বিতরণ করবে। ১৭ ফেব্রুয়ারি সব জেলা শহরে এবং ১৮ ও ১৯ ফেব্রুয়ারি সব উপজেলা, থানা, পৌরসভা ও ইউনিয়ন পর্যায়ে একই কর্মসূচি পালন করবে। এছাড়া ভারত ও মিয়ানমার সীমান্তে দেশ দুটির সীমান্তরক্ষীদের ছোড়া গুলিতে নিহত বাংলাদেশিদের স্মরণে ১৬ ফেব্রুয়ারি জুমার নামাজের পর দেশের সব মসজিদে দোয়ার আয়োজন করবে দলটি।

এর আগে দ্বাদশ সংসদ নির্বাচন বর্জনের পর বিএনপি সবশেষ গত ৩০ জানুয়ারি সংসদ অধিবেশনের শুরুর দিন ঢাকাসহ সারা দেশে কালো পতাকা মিছিলে কর্মসূচি পালন করে।

দলীয় সূত্রে জানা গেছে, ‘দেশ বাঁচাও, মানুষ বাঁচাও’ শিরোনামে লিফলেটে নিত্যপ্রয়োজনীয় দ্রব্যাদির সীমাহীন মূল্যবৃদ্ধির চিত্র, দুর্নীতি, নির্বাচন, মামলা-হামলা ও গ্রেফতারের সংক্ষিপ্ত চিত্র তুলে ধরা হয়েছে। লিফলেটের শেষে বলা হয়েছে, ‘গণতন্ত্র ও মানবাধিকার, ভোটাধিকার পুনঃপ্রতিষ্ঠার পাশাপাশি মাতৃভূমির স্বাধীনতা ও সার্বভৌমত্ব রক্ষার জন্য দেশের সব গণতন্ত্রকামী রাজনৈতিক দল, শ্রেণি-পেশার সংগঠন, সামাজিক-সাংস্কৃতিক সংগঠন ও সচেতন জনগণের ইস্পাত কঠিন ঐক্য ও অব্যাহত সাহসী লড়াই আজ সময়ের দাবি। আসুন, আমরা আরও ঐক্যবদ্ধ হই এবং গণতান্ত্রিক আন্দোলনের মাধ্যমে অনির্বাচিত অবৈধ সরকারের অবসান ঘটিয়ে তাদের অপশাসন, লুটপাট, দুর্নীতি, অনাচার, অত্যাচার থেকে দেশকে মুক্ত করি এবং নিজেরা মুক্ত হই। এই ন্যায়যুদ্ধে বিজয় আমাদেরই হবে।

কালের চিঠি / আশিকুর।